বরকেও চাই প্রেমিককেও চাই

সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে ‘আতরঙ্গী রে’-র ট্রেলার। এই ফিল্মে অভিনয় করেছেন সারা আলি খান (Sara Ali Khan), অক্ষয়কুমার (Akshay Kumar) এবং ধনুশ (Dhanush)।

‘রানঝনা’-র দীর্ঘ ছয় বছর পর বলিউডে কামব‍্যাক করছেন ধনুশ। ‘আতরঙ্গী রে’-র ত্রিকোণ প্রেমের কাহিনীর মাধ্যমে কামব‍্যাক ঘটছে তাঁর।


বুধবার মুক্তি পেয়েছে আনন্দ এল.রাই (Anand L. Rai) পরিচালিত ‘আতরঙ্গী রে’-র ট্রেলার। ফিল্মের কাহিনী আবর্তিত হয়েছে রিঙ্কু সূর্যবংশী, তার পুরানো প্রেমিক সাজাদ ও তার স্বামী বিষ্ণুকে ঘিরে। সাজাদকে ভালোবাসে রিঙ্কু।

তার সঙ্গে একুশ বার বাড়ি থেকে পালিয়েছে সে। কিন্তু প্রতিবারই তারা ধরা পড়েছে পরিবারের হাতে। দুজনের সম্পর্কের মাঝে মূল বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছে ধর্ম। জোর করে বিষ্ণুর সঙ্গে রিঙ্কুর বিয়ে দেয় রিঙ্কুর পরিবারের সদস্যরা।

বিষ্ণু ও রিঙ্কু দুজনে ঠিক করে বিয়ের পর দিল্লি পৌঁছে তারা নিজেদের মতো জীবন বেছে নেবে। কিন্তু কিভাবে যেন সরল ছেলে বিষ্ণুকে ভালোবেসে ফেলে রিঙ্কু। অপরদিকে তখন তার জীবনে রয়েছে সাজাদের অস্তিত্ব।

বিষ্ণু তার কাছে ডিভোর্স চাইলে তা দিতে পারে না রিঙ্কু। কারণ সে তাকে ভালোবাসে। অপরদিকে সে ভালোবাসে সাজাদকেও। রিঙ্কু বিষ্ণুকে বলে, তাকে রিঙ্কুর ভালো লাগে।

একটি মেয়ে কি দুজনকেই ভালোবাসতে পারে না? বিষ্ণু এই প্রশ্নের কোনও সদুত্তর দিতে পারে না। ‘আতরঙ্গী রে’ ফিল্মে রিঙ্কুর ভূমিকায় অভিনয় করেছেন সারা আলি খান। বিষ্ণুর ভূমিকায় রয়েছেন ধনুশ। সারার প্রেমিক সাজাদের চরিত্রে অভিনয় করেছেন অক্ষয়কুমার।


‘আতরঙ্গী রে’-র চরিত্রগুলি সত্যিই অভিনব। হাতিতে চড়ে সাজাদের এন্ট্রি, ভুল ইংরাজি বলা, ম্যাজিক শো দেখানো যথেষ্ট মজাদার। ধনুশ ও অক্ষয়ের সঙ্গে সারার বয়সের পার্থক্য নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলেছিলেন। আনন্দ বলেছিলেন, একজন পরিচালক নির্দিষ্ট দৃষ্টিভঙ্গি নিয়ে ফিল্ম বানান। দর্শকরা তাঁর চিন্তাধারা বুঝতে পারবেন বলে আশাবাদী ছিলেন আনন্দ।

তাঁর কথাকে সত্যি করে প্রশংসিত হয়েছে ধনুশ ও সারার রসায়ন। আগামী 24 শে ডিসেম্বর ওটিটি প্ল্যাটফর্ম ডিজনি প্লাস হটস্টারে মুক্তি পেতে চলেছে ‘আতরঙ্গী রে’।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *