পর্ন ছবি শ্যুট করতে ‘মেমোরি চিপ’‌ দিতেন অভিনেত্রী নন্দিতা ও মৈনাক, জেরায় দাবি শুভঙ্করের

নিউ টাউনের পর্ন কাণ্ডে ধৃত শুভঙ্করকে জেরা করে চাঞ্চল্যকর তথ্য উঠে এল তদন্তকারীদের হাতে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, জেরায় অভিযুক্ত শুভঙ্কর তদন্তকারীদের জানিয়েছে, ঘটনায় ধৃত মূল অভিযুক্ত নন্দিতা দত্ত ও মৈনাক ঘোষ নীল ছবি শ্যুটিংয়ের আগে তাকে মেমোরি চিপ দিয়ে দিত। পর্ন ছবি শ্যুট করা হয়ে গেলে, সেই চিপ আবার তার কাছ থেকে ফেরত নিয়ে নিত অভিযুক্তরা।

পুলিশ সূত্রে আরও জানা গিয়েছে, গত ২৬ জুলাই নিউটাউনের এক হোটেলে ফটোশ্যুটের নামে ডেকে নিয়ে গিয়ে এক তরুণীকে দিয়ে পর্ন শ্যুট করায় অভিযুক্তরা। নীল ছবি কাণ্ডে অভিযোগকারিণীর দাবি, অভিনেত্রী শিল্পা শেট্টির স্বামী রাজ কুন্দ্রার অ্যাপে তাঁর ‌ন্যুড ছবি আপলোড করা হয়েছে।

তবে পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এই ভিডিয়োগুলো ঠিক কোন সাইটে আপলোড করা হত, সেই বিষয়ে এখনও মুখ খোলেননি অভিযুক্তরা। তাঁদের কাছ থেকে তা জানার চেষ্টা করছে পুলিশ।

সোমবার নন্দিতা ও মৈনাকের চার দিনের পুলিশি হেফাজতের মেয়াদ শেষ হওয়ায় তাঁদের বারাসত আদালতে তোলা হয়। ধৃত মৈনাককে ৪ দিনের পুলিশি হেফাজত ও নন্দিতা-‌সহ বাকি অভিযুক্তদের ৮ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন বিচারক।

নীল ছবি কাণ্ডে গত ২৯ জুলাই দমদম থেকে ফটোগ্রাফার মৈনাক ও মডেল নন্দিতাকে গ্রেফতার করে নিউ টাউন থানার পুলিশ। ভয় দেখিয়ে তরুণীদের পর্ন ছবিতে কাজ করতে বাধ্য করার অভিযোগে দুই অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

খোঁজ চলছে এই পর্ন ব্যবসার সঙ্গে জড়িত অন্যান্য ব্যক্তিদের। শুক্রবার ঘটনায় জড়িত থাকার সন্দেহে গড়ফা এলাকা থেকে স্টুডিওর মালিককে আটক করা হয়। ধৃতদের জেরা করে শুভঙ্করের নাম উঠে আসে। শনিবার রাতে চুঁচুড়া থানার সাহায্যে রবীন্দ্রনগর এলাকা থেকে শুভঙ্করকে গ্রেফতার করে নিউটাউন থানার পুলিশ।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *