নুসরাতকে আমি অপছন্দ করতাম, বোমা ফাটালেন যশ

গত কয়েক মাসে যশ দাশগুপ্ত এবং নুসরাত জাহানকে নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় চর্চা কম হয়নি। গত এক বছরে পুরোদস্তুর পালটে গিয়েছে যশ-নুসরাতের সম্পর্কের সমীকরণ। এই বদলটা শুরুর দিকে আঁচ করতে পারেননি অনেকেই।

বর্তমানে নিজেদের প্রেম নিয়ে কোনো রাখঢাক রাখেননি এই জুটি, এমনকি ইঙ্গিত এমনো মিলেছে যে বিয়েটাও সেরে ফেলেছেন ‘যশরত’। প্রতিদিনই নতুন রঙ লাগে যশ-নুসরাতের প্রেমে। ঈশানকে নিয়ে এখন সুখের সংসার যশ-নুসরাতের।

এই প্রেম কাহিনি হয়রান করেছে অনেককেই। ‘ওয়ান’ ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছিলেন দুজনে। কিন্তু সেখানে সখ্যতা গড়ে উঠেনি যশ-নুসরাতের। তবে ‘এসওএস কলকাতা’ সব হিসেব-নিকেশ উলটে দেয়।

যশের কথায়, আমি ওকে সহকর্মী হিসাবে একদম অপছন্দ করতাম, আমার মনে হত নুসরত ভীষণ দাম্ভিক।

সম্প্রতি এক সাক্ষাত্কারে এমনটাই বলেছেন যশ। অন্যদিকে সেই ইংরাজি দৈনিককে নুসরাত জানান, ‘আমার বন্ধুরা পরামর্শ দিয়েছিল যশের থেকে দূরত্ব বজায় রাখবার। তবে সব ইকুয়েশন পালটে গিয়েছে মাস কয়েকের মধ্যেই।

ঈশানের অভিভাবকের দায়িত্ব কেমনভাবে পালন করছেন দু’জনে? নুসরতের কথায়, দুর্দান্ত। এখনো মাঝেমধ্যেই বিশ্বাস করতে পারি না। তবে সৌভাগ্যবশত আমাকে একা সব দায়িত্ব পালন করতে হচ্ছে না। যশ সব কাজে এগিয়ে আসে। আমি অনেক সময় বুঝতে পারি না ঈশান কী বলতে চাইছে, কিন্তু যশ অসাধারণ বাবা।

পাশ থেকে মুচকি হেসে যশ যোগ করলেন, নুসরত মা হিসাবে দারুণ, আমি বিশ্বাস করি মেয়েরা যখন মা হয়, তখন সহজাতভাবেই সে জানে বাচ্চাকে কীভাবে লালন-পালন করতে হয়।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*