করোনা টেস্টের ফি শুনে মাথায় হাত নায়িকা শ্রীলেখার

ইউরোপের করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ায় ইতালিতে মাসখানেক ধরে ঘুরে বেরিয়েছেন কলকাতার আলোচিত অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র। এখন তিনি ইতালির ভেনিস শহরে আছেন।

ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে শ্রীলেখার ভেনিস ভ্রমণের একটি দৃশ্য। যেখানে দেখা গেছে, শ্রীলেখার কপালে দুশ্চিন্তার ভাঁজ।

কপালে হাত দিয়ে ভেনিসের রাস্তায় বসে আছেন তিনি।

অভিনেত্রী নিজেই তার ফেসবুক প্রোফাইলে ছবিটি পোস্ট করেছেন। আর সেই ছবি ঘিরেই নেটমাধ্যমে চলে আলোচনা।

ছবিতে দেখা যাচ্ছে, সাদা লম্বা ঝুলের একটি পোশাকে কপালে হাত দিয়ে রাস্তায় বসে পড়েছেন শ্রীলেখা। তার চোখে কালো চশমা, পাশে রাখা একটি হলুদ ব্যাগ। তাকে পরিশ্রান্ত বা হতাশ মনে হচ্ছে।

কী এমন ঘটেছে যে এভাবে ভেনিসের রাস্তায় বসে পড়তে হলো অভিনেত্রীকে। পোস্টেই বিষয়টি স্পষ্ট করেছেন শ্রীলেখা।

তিনি জানিয়েছেন, ভেনিসে গিয়ে করোনা টেস্ট করাতে গিয়ে বড়সড় হোঁচটই খেয়েছেন নায়িকা। সেখানে আরটিপিসিআর টেস্টের খরচ ১১২ ইউরো, যা ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ১০ হাজার রুপি। আর তা শুনেই মাথায় হাত পড়েছে অভিনেত্রীর।

কলকাতার গণমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর দেশে ফেরার কথা শ্রীলেখার। যার জন্য করোনা টেস্ট বাধ্যতামূলক। আর তাই করোনা টেস্টের খরচ কত খোঁজ নিতে গিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু খরচ শুনেই চোখ ছানাবড়া!

প্রসঙ্গত, দিত্য বিক্রম সেনগুপ্তের ছবি ‘ওয়ান্স আপন দ্য টাইম ইন কলকাতা’ ৭৮তম ভেনিস আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে দেখানো হয়েছে। ছবিতে কেন্দ্রীয় ভূমিকায় অভিনয় করেছেন শ্রীলেখা। আর সে কারণেই ভেনিসে গেছেন অভিনেত্রী।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *