আবারও আলোচনায় দীপিকা, জেনে নিন কেন?

দারুণ এক মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন বলিউড অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোন। অপরিচিতএক সহকর্মীর
পাশে দাঁড়িয়ে প্রমাণ দিলেন নিজের উদারতার।

দীপিকা পাড়ুকোন অভিনীত ‘ছপক’ ছবিটিতে বাস্তবের অ্যাসিড-আক্রান্ত বেশ কিছু মহিলা অভিনয় করেছিলেন। তাদের মধ্যে একজন বছর ২৫-এর বালা প্রজাপতি।

রীরে দুটি কিডনিই নষ্ট হয়ে গিয়েছে তার। এই সহকর্মীর চিকিৎসায় সাহায্যে এগিয়ে এলেন দীপিকা।

উত্তর প্রদেশের বিনৌরের বাসিন্দা বালা প্রজাপতি। বর্তমানে অসুস্থ হয়ে দিল্লির সফদরজং হাসপাতালে ভর্তি আছেন বলে জানিয়েছে হিন্দুস্তান টাইমস। কিডনি প্রতিস্থাপন করা ছাড়া বাঁচানো সম্ভব নয় তাকে।

আপাতত ডায়ালিসিসের ওপরই বেঁচে আছেন। কিন্তু তার আর্থিক অবস্থা খারাপ হওয়ায় কিডনি প্রতিস্তাপনের খরচ বহন করা সম্ভব হচ্ছিলো না। চিকিৎসায় খরচ পড়বে প্রায় ১৬ লক্ষ।

মেঘনা গুলজার পরিচালিত ‘ছপাক’ ছবিতে এক অ্যাসিড আক্রমণের শিকারের ভূমিকায় অভিনয় করেছিলেন দীপিকা পাড়ুকোন। ছবিতে লক্ষ্মী আগরওয়ালের ভূমিকায় দেখা গিয়েছিল দীপিকাকে। অ্যাসিড-আক্রান্ত মহিলাদের সম্পর্কে সমাজের ধ্যান-ধারনা বদল আনার চেষ্টা ছিল এই ছবি।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*